ঢাকা মঙ্গলবার, ২০শে আগস্ট ২০১৯, ৬ই ভাদ্র ১৪২৬


ধান কাটলেন ছাত্রলীগ সভাপতি শোভন ও সম্পাদক রাব্বানী


২৩ মে ২০১৯ ১৭:৩১

আপডেট:
২৩ মে ২০১৯ ১৭:৩৮

দরিদ্র কৃষকদের ধান কেটে দিচ্ছেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সভাপতি শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী। আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর অদূরে সিরাজদিখান এলাকায় ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বে স্থানীয় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা অসহায় কৃষকদের ধান কেটেছেন বলে জানা গেছে। এতে প্রশংসায় ছাত্রলীগধান কাটলেন ছাত্রলীগ সভাপতি শোভন ও সম্পাদক রাব্বানী

ধানের দাম কম আর শ্রমিকের মূল্য বেশি হওয়ায় মাঠ থেকে পাকা ধান ঘর তুলছেন না কৃষকরা। এ অবস্থায় কৃষকদের ধান কাটতে সহযোগিতা করবে ছাত্রলীগ।

মঙ্গলবার ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি মো. রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে কৃষকদের ধান কাটাসহ সব ধরনের সহযোগিতা করতে সংগঠনটির সব ইউনিটের নেতাকর্মীদের আহ্বান জানানো হয়। এরই অংশ হিসেবে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক নিজেই ধান কাটার কাজে নেমে পড়েছেন।


কৃষকদের সার্বিক সহযোগিতা করতে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির কৃষি শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক এস এম মাকসুদুর রহমান মিঠুকে সমন্বয়ক করে তিন সদস্যের বিশেষ কমিটিও গঠন করেছে ছাত্রলীগ।

এস এম মাকসুদুর রহমান মিঠু বলেন, ইতোমধ্যে আমরা তৃণমূলের অনেক নেতাকর্মীর সাড়া পাচ্ছি। তারা কিছু কিছু এলাকায় কাজও শুরু করে দিয়েছে। প্রান্তিক কৃষকদের ধান কাটার মাধ্যমে তাদের সার্বিক সহযোগিতা করছে।

এবার বোরো ধান আবাদ করে উৎপাদন খরচ উঠছে না বলে সারাদেশে কৃষকদের ক্ষোভ-বিক্ষোভ চলছে। ধানের দাম নিয়ে অসন্তোষ থেকে পাকা ক্ষেতে কৃষকের আগুন দেওয়ার ঘটনাও ঘটেছে কোথাও কোথাও।

এ পরিস্থিতিতে কৃষকদের রক্ষায় অর্থমন্ত্রী চালমদানি সীমিত করার কথা কথা বলেছেন। আর খাদ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি এবার লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশি ধান কেনাসহ চাল আমদানি পুরোপুরি বন্ধ রাখতে সুপারিশ করেছে।

এসম্পর্কে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী বলেন,

গতকাল ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে ধান কাটার মজুর না পাওয়া অসহায় কৃষক ভাইদের পাশে থাকার প্রত্যয় ব্যক্ত করে প্রেস রিলিজ দেয়ার ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই ছাত্রলীগের কৃষি শিক্ষা সম্পাদক মিঠু ফোন করে জানালো ঢাকার কাছেই সাভারের ভাকুর্তা ইউনিয়ন থেকে শুক্কুর আলী নামে একজন কৃষক ভাই ফোন করে সাহায্য চেয়েছেন। মজুর এর অভাবে তার ক্ষেতের পাকা ধান নিয়ে বিপাকে পড়েছেন।

সহসা মনে হলো, যেহেতু ঢাকার কাছেই, সশরীর গিয়েই এই উদ্যোগের সূচনা করে দিয়ে আসি। যেই ভাবা সেই কাজ। ভর দুপুরেই চলে এলাম। স্থানীয় ছাত্রলীগ নেতাকর্মী নিয়ে কাজ শুরুর ২ ঘন্টার মধ্যেই শুক্কুর আলী ভাই এর ১০ কাঠা জমির ধান কাটা শেষ...

প্রত্যাশা রাখি, সারা দেশে ছাত্রলীগের সকল নেতাকর্মী একসাথে মাঠে নামবে, কৃষক ভাইদের পাশে থাকবে।

কৃষক বাঁচলে ,বাঁচবে দেশ
শেখ হাসিনার বাংলাদেশ। ♥

# ধানের মূল্য এবং চালের দামের বিস্তার ব্যবধান কমাতে হবে। চালের আমদানি বন্ধ করতে হবে।

আর ন্যায্যমূল্যে সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান কিনতে প্রশাসন ও প্রান্তিক কৃষকের মাঝে সেতুবন্ধন গড়ে দিতে সর্বাত্মক প্রচেষ্টা থাকবে ছাত্রলীগের।